শুক্রবার , ৮ এপ্রিল ২০২২ | ১২ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
  1. অপরাধ
  2. অর্থনীতি
  3. আইন ও বিচার
  4. আন্তর্জাতিক
  5. এক্সক্লুসিভ
  6. খুলনা
  7. খেলা
  8. চট্টগ্রাম
  9. চাকুরীর খবর
  10. ঢাকা
  11. ফটোগ্যালারি
  12. বরিশাল
  13. বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি
  14. বিনোদন
  15. বিবিধ

হঠাৎ বৃষ্টি শেষে শুরু খেলা

প্রতিবেদক
নিউজ ডেস্ক
এপ্রিল ৮, ২০২২ ৭:১২ অপরাহ্ণ

সকাল থেকে হালকা মেঘ ছিল পোস্ট এলিজাবেথের আকাশে। তবে বর্ষণের কোনো পূর্বাভাস ছিল না।

 

অথচ কথা নেই, বার্তা নেই, হুট করেই ঝুম বৃষ্টি নামলো। হঠাৎ জমাট বাঁধা মেঘ থেকে সৃষ্ট এই বৃষ্টিতে খেলা সাময়িকভাবে বন্ধ হয়।

পিচ ঢেকে রাখা হয় কভারে এবং খেলোয়াড়রা ফিরে যান ড্রেসিংরুমে।

তবে এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত বৃষ্টি থেমে গেছে এবং কভারও সরিয়ে নেওয়া হয়েছে।

 

শুরু হয়েছে খেলাও।

বৃষ্টি বাধার আগ পর্যন্ত ৩৯ ওভার শেষে নিজেদের প্রথম ইনিংসে ২ উইকেট হারিয়ে দক্ষিণ আফ্রিকার সংগ্রহ ছিল ১৫৬ রান। ৫১ রানে কিগান পিটারসেন ও ৯ রানে অপরাজিত আছেন টেম্বা বাভুমা।

 

আজ শুক্রবার (৮ এপ্রিল) পোর্ট এলিজাবেথের সেন্ট জর্জ পার্কে টস জিতে বাংলাদেশকে ফিল্ডিংয়ে পাঠান দ. আফ্রিকার অধিনায়ক ডিন এলগার। এই ম্যাচে বাংলাদেশ দলে এসেছে দুই পরিবর্তন। ওপেনার সাদমান ইসলামের পরিবর্তে দলে ফিরেছেন তামিম ইকবাল। চোটে পড়া তাসকিন আহমেদের জায়গায় এসেছেন স্পিনার তাইজুল। অপরদিকে অপরিবর্তিত একাদশ নিয়ে খেলতে নেমেছে স্বাগতিকরা।

 

ব্যাট করতে নেমে ভালো শুরু করেন দ. আফ্রিকার দুই ওপেনার এলগার ও সারেল এরউই। ৭২ বলে ৫২ রানের জুটি গড়েন তারা। দ্বাদশ ওভারের শেষ বলে জুটি ভাঙেন বাংলাদেশের পেসার খালেদ আহমেদ। উইকেটের পেছনে লিটন দাসের হাতে ক্যাচ দিয়ে ২৪ রানে সাজঘরে ফেরেন সারেল।

 

সারেল বিদায় নিলে এলগারকে সঙ্গ দেন কিগান পিটারসেন। একপ্রান্তে থিতু হয়ে ব্যাট করে ৬৬ বলে ৬ বাউন্ডারিতে অর্ধশতক তুলে নেন প্রোটিয়া অধিনায়ক। তার ব্যাটে ভর করেই প্রথম সেশনে ১০৭ রানের সংগ্রহ পায় দ. আফ্রিকা। দ্বিতীয় সেশনেও দারুণ ব্যাট করছিলেন এলগার। ছুটছিলেন সেঞ্চুরির দিকে। তবে উড়তে থাকা এলগারকে মাটিতে নামান টাইগার স্পিনার তাইজুল ইসলাম।

 

দীর্ঘদিন পর দলে ফেরা তাইজুলের কুইকারে পিছিয়ে মারতে চেয়েছিলেন এলগার। কিন্তু তার ব্যাটের কানায় লেগে উইকেটকিপার লিটন দাসের গ্লাভসে জমা হয়। ফলে শেষ হয় এলগারের ৮৯ বলে ৭০ রানের ইনিংস। সেই সঙ্গে ভাঙে কিগান পিটারসেনের সঙ্গে তার ৮১ রানের জুটি। এলগার থামলেও পিটারসেন ছুটতে থাকেন আপন গতিতে। এবাদতের এক ওভারে টানা ৩ চার হাঁকিয়ে তুলে নেন ফিফটিও।

সূত্রঃ বাংলা নিউজ টুয়েন্টিফোর ডটকম

সর্বশেষ - ঢাকা

আপনার জন্য নির্বাচিত